২৪৯ রানে অলআউট নিউজিল্যান্ড, মহা বিপদে শ্রীলঙ্কাও

August 15, 2019 9:07 pm
Print Friendly, PDF & Email

বৃষ্টির কারণে প্রথমদিন খেলা হয়েছে ২২ ওভার কম। না হয়, গল টেস্টের প্রথম দিনই ব্যাট করতে নামতে পারতো স্বাগতিক শ্রীলঙ্কা। কিন্তু দ্বিতীয় দিন খুব বেশি অপেক্ষা করতে হয়নি তাদেরকে। দ্বিতীয় দিন ব্যাট করতে নেমে মাত্র ১৫.২ ওভার খেলতে পারলো কিউইরা। তাতেই অলআউট তারা ২৪৯ রানে।

২০৩ রান নিয়ে দ্বিতীয় দিন শুরু করার পর শুরুতেই সুরঙ্গা লাকমালের শিকারে পরিণত হন নিউজিল্যান্ডের স্বপ্ন বহন করে চলা রস টেলর। দিনের দ্বিতীয় ওভারেই লাকমালের বলে ব্যাটের কানায় লাগিয়ে উইকেটের পেছনে নিরোশান ডিকভেলার হাতে ক্যাচ দিতে বাধ্য হন আগের দিন ৮৬ রানে ব্যাট করতে থাকা এই ব্যাটসম্যান। দ্বিতীয় দিন কোনো রানই যোগ করতে পারেননি টেলর। আউট হয়ে গেলেন সেই ৮৬ রানেই।

রস টেলর ফিরে যেতেই ধ্বস নামে নিউজিল্যান্ড ইনিংসের। ২০৫ থেকে ২৪৯, মাঝে ৪৪ রানের ব্যবধানে তারা হারালো বাকি ৫ উইকেটের। মিচেল সান্তনার ১৩ এবং ট্রেন্ট বোল্ট করেন ১৮ রান। ১৪ রান করে রানআউট হন টিম সাউদি।

 

প্রথম দিন কিউইদের আতঙ্ক ছিলেন আকিলা ধনঞ্জয়া। দ্বিতীয় দিন আতঙ্কে পরিণত হন সুরাঙ্গা লাকমাল। তিনি একাই নেন ৪ উইকেট। আকিলা ধনঞ্জয়া নেন ৫ উইকেট। একটি রানআউট।

জবাবে প্রথম ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে মহা বিপদে পড়েছে স্বাগতিক শ্রীলঙ্কাও। ১৬১ রানেই ৭ উইকেট হারিয়ে বসেছে লঙ্কানরা। কুশল মেন্ডিস আর অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউজ জোড়া হাফ সেঞ্চুরি করার পরও দারুণ বিপদে তারা।

ওপেনার লাহিরু থিরিমানে ১০ রানে আউট হয়ে যান। ৩৯ রান করে ফিরে যান দিমুথ করুনারত্নে। কুশল মেন্ডিস করেন ৫৩ রান। ম্যাথিউজ আউট হন ৫০ রান করে। এরপরের ব্যাটসম্যানরা আর দাঁড়াতেই পারেননি। কুশল পেরেরা, ধনঞ্জয়া ডি সিলভা এবং আকিলা ধনঞ্জয়া আউট হন খুব দ্রুত।

তবে ৮ম উইকেট জুটিতে নিরোশান ডিকভেলা এবং সুরাঙ্গা লাকমাল কিছুটা প্রতিরোধ গড়ে দাঁড়ান। ডিকভেলা ১৭ এবং লাকমাল ২২ রানে ব্যাট করছেন। এ রিপোর্ট লেখার সময় শ্রীলঙ্কার রান ৬৮ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৯৮। নিউজিল্যান্ডের চেয়ে ৫১ রান পিছিয়ে রয়েছে তারা।